ডেস্ক রিপোর্টার,১সেপ্টেম্বর।।
তৃণমূল কংগ্রেসে যোগদান অব্যাহত। প্রায় প্রাতদিন তৃণমূলে যোগ দিচ্ছেন ভোটাররা। বিজেপি,সিপিআইএম ও কংগ্রেস ছেড়ে সাধারণ ভোটার গা ভাসছেন ঘাসফুল শিবিরে। দাবি প্রদেশ তৃণমূল নেতৃত্বের।
বুধবার প্রদেশ তৃণমূল কংগ্রেসের অস্থায়ী কার্যালয়ে (স্থানীয় নেতা সুবল ভৌমিকের বাড়ি) ১১পরিবারের ১১৪জন মা-মাটি-মানুষের দলে নাম লিখিয়েছেন।জানান তৃণমূল নেতা সুবল ভৌমিক।আগরতলা সহ আশপাশ এলাকা থেকে মানুষ এসেছে তৃণমূলে।
এদিনের দলত্যাগ অনুষ্ঠানের পর তৃণমূল নেতা সুবল ভৌমিক,রাজ্যের শিক্ষা ব্যবস্থা নিয়ে প্রশ্ন তুলেন।তিনি বলেন,এই রাজ্যের শিক্ষা ব্যবস্থা এখন অভিভাবকহীন। স্কুল থেকে কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা ব্যবস্থা ভেঙে পড়েছে। সুবল ভৌমিকের অভিযোগ, গত ১১বছর ধরে রাজ্যের ডিগ্রি কলেজ গুলিতে নেই কোনো নিয়োগ।স্বাভাবিক ভাবেই শিক্ষক স্বল্পতায় ভোগছে কলেজগুলি। অথচ এই রাজ্যে পিএসডি ,নেট,স্লেট পাশ করে অনেক ছেলে মেয়ে বসে আছে।তাদের নেই চাকরি।
রাজ্যের শিক্ষা ব্যবস্থার জন্য সুবল ভৌমিক রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব ও শিক্ষামন্ত্রী রতন নাথকে দায়ী করছেন।তিনি বলেন,রাজ্য সরকার উদাসীন থাকার কারণেই স্কুল-কলেজ সহ বিশ্ব বিদ্যালয় গুলিতে শিক্ষক স্বল্পতা সহ নানান সমস্যা রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.