ডেস্ক রিপোর্টার,৪এপ্রিল।।
শিয়রে রাজ্যের চারটি বিধানসভা কেন্দ্রের উপ নির্বাচন। সম্ভবত উপ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে মে মাসে।এমন আভাস পাওয়া গিয়েছে নির্বাচন কমিশন সূত্রে।
প্রতিটি রাজনৈতিক দলের মত উপনির্বাচন নিয়ে অঙ্ক কষতে শুরু করেছে তৃণমূল কংগ্রেস।চারটি কেন্দ্রেই প্রার্থী দেবে ঘাসফুল।তবে লড়াই কতটা করতে পারবে তা বলবে সময়েই। এখন পর্যন্ত দলের রাজ্য কমিটি ঘোষণা হয়নি।আনুষ্ঠানিক ভাবে দলের কোনো মুখ নেই। তারপরও চার কেন্দ্রের উপ নির্বাচন নিয়ে তৎপর তৃণমূল।
প্রদেশ ঘাসফুল সূত্রের খবর, আগরতলা ও যুবরাজ নগর কেন্দ্রের জন্য প্রার্থী নিশ্চিত করেছে তৃণমূল কংগ্রেস। আগরতলা কেন্দ্রে তৃণমূল কংগ্রেসের হয়ে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করবে পান্না দেব। এবং যুবরাজ নগর থেকে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করবে ড. মৃনাল দেবনাথ। মৃনাল প্রদেশ তৃণমূল কংগ্রেসের স্টিয়ারিং কমিটির সদস্য। তার বাড়ি যুবরাজ নগরে। এই কেন্দ্রের প্রয়াত বিধায়ক রমেন্দ্র চন্দ্র দেবনাথের ভাইপো। বাম ঘরানা থেকে আসা উচ্চ শিক্ষিত মৃনালকেই তৃণমূল যুবরাজ নগরে প্রার্থী করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।
পান্না দেব সম্পর্কে ওয়াকিবহাল শহরের মানুষ।তিনি একসময় ছিলেন কংগ্রেসের প্রাক্তন কাউন্সিলার। পরে তৃণমূল কংগ্রেসে চলে যান।২০১৮ বিধানসভা নির্বাচনে তিনি তৃণমূল কংগ্রেসের হয়ে আগরতলা কেন্দ্রে লড়াই করেছিলেন। তখন বিজেপি’র প্রবল জোয়ারে পান্না দেবের জামানত জব্দ হয়েছিলো। এবারও তিনি উপনির্বাচনে আগরতলা কেন্দ্র থেকে প্রার্থী হচ্ছেন।তবে কতটা লড়াই করতে পারবেন?তা বলবে সময়েই।
এখন পর্যন্ত খবর সুরমা কেন্দ্রে তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী হতে চলেছেন আশীষ দাস।তিনি এর আগে বিজেপি’র বিধায়ক ছিলেন।কিন্তু বিজেপি ছেড়ে তিনি তৃণমূল কংগ্রেসে যোগ দিতেই তাঁর বিধায়ক পদ খারিজ হয়ে যায়।এই কারণেই এই কেন্দ্রে হবে উপনির্বাচন। তৃণমূল কংগ্রেসের টিকিটে আশীষ দাস লড়াই করলেও তিনি কতটা কি করতে পারবেন,তা নিয়ে সন্দেহ রয়েছে। সুরমাতে তৃণমূল কংগ্রেসের সেই রকম কোনো ভীত নেই। বিজেপি ছাড়ার পর এলাকায় আশীষ দাসের জনপ্রিয়তা অনেকটাই তলানিতে ঠেকেছে।অনেকে তাকে সমর্থন করলেও নানা কারণে প্রকাশ্যে আসছেন না। স্বাভাবিক ভাবেই আশীষ নিজ কেন্দ্রে তৃণমূল কংগ্রেসের টিকিটে কতটা সাবলীল হবেন তা নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছে না।ভোটারদের পরিসংখ্যান হিসেব করলে দেখা যায় এই কেন্দ্রে মূলত বিজেপি-তিপ্রামথার মধ্যে মূল লড়াই হবে। এক্ষেত্রে সিনের বাইরে থাকবে তৃণমূল ও কংগ্রেস। তবে শেষ পর্যন্ত আশীষ দাস তৃণমূল থেকে লড়াই করেন কিনা তা নিয়েও বাড়ছে জটিলতা।টাউন বড়দোয়ালী কেন্দ্রেও প্রার্থী দেবে তৃনমূল।কিন্তু এখনো এই কেন্দ্রে প্রার্থী নিশ্চিত করতে পারেনি। বেশ কয়েকজনের নাম উঠে এসেছে তালিকায়। তবে এখন পর্যন্ত কাউকেই চূড়ান্ত করতে পারে নি তৃণমূলের থিঙ্ক-ট্যাঙ্ক।

Leave a Reply

Your email address will not be published.