তেলিয়ামুড়া ডেস্ক,৯এপ্রিল।।
পাহাড়ের রাজ্যের শাসক দল বিজেপি’র পাল্লা ভারী। ২০২৩ বিধানসভা নির্বাচনের প্রাক লগ্নে তিপ্রামথাকে ছাপিয়ে পাহাড়ে নিজেদের ভীত শক্ত করতে চাইছে গেরুয়া শিবির।শনিবার খোয়াই জেলার কৃষ্ণপুর বিধানসভা কেন্দ্রে দেখা গেলো তারই ঝলক।

কৃষ্ণপুর বিধানসভার প্রত্যন্ত গ্রাম হাজরাকামীতে বাজার সভার মধ্য দিয়ে ৮৮ পরিবারের মোট ২৫৪ জন ভোটার বিজেপিতে যোগ দিয়েছে। নবাগতদের পদ্ম পতাকা হাতে দিয়ে দলে বরণ করে নেন বিজেপি খোয়াই জেলা প্রভারি তথা প্রদেশ বিজেপি’র প্রদেশ সহ-সভাপতি অমিত রক্ষিত। এডিসির শাসক দল তিপ্রামথা ও বিজেপির জোট সঙ্গী আইপিএফটি ত্যাগ করে ভোটাররা যোগ দিয়েছে গেরুয়া শিবিরে। এই যোগদান সভায় অমিত রক্ষিত ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন কৃষ্ণপুর বিধানসভা কেন্দ্রের বিধায়ক ডাঃ অতুল দেববর্মা, মন্ডল সভাপতি টুটন দেব সহ অন্যান্য নেতৃত্বরা।

এদিনের যোগদান সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে বিজেপি খোয়াই জেলা প্রভারি অমিত রক্ষিত বলেন,” জনজাতি অংশের মানুষজন ত্রিপুরা রাজ্যের বিভিন্ন সরকার দেখেছে, তবে যদি জনজাতিদের উত্থানের জন্য কোনো সরকার কাজ করে থাকে সেটা হল বিজেপি সরকার।” অমিতের কথায়, উপজাতি অধ্যুষিত এলাকাগুলোতে বিভিন্ন আঞ্চলিক দল মাথা তুলে দাঁড়াতে চাইলেও তাদের প্রয়াস ব্যার্থ হয়েছে বারবার। নাম না করে এডিসির শাসক দল তিপ্রামথার তীব্র সমালোচনা করেন অমিত রক্ষিত।

তিপ্রামথা ও আইপিএফটি’র ঘরে বিজেপি’র এই দফাওয়ারী হানা রাজনৈতিক ভাবে যথেষ্ট তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published.