ডেস্ক রিপোর্টার,১২জুন।।
” গোটা দেশ জুড়ে দলিত সম্প্রদায়ের উপর অত্যাচার বৃদ্ধি পাচ্ছে। প্রতিদিন দেশের বিভিন্ন থানায় দায়ের হচ্ছে মামলা।রাম-হনুমানের নামে দেশে চলছে দলিত নিধন”। বলছেন সর্ব ভারতীয় কংগ্রেসের এসসি কমিটির চেয়ারম্যান রাজেশ লাইলোকিয়া। রবিবার আগরতলা কংগ্রেস ভবনে সাংবাদিক সম্মেলনে তিনি এই ভাষায় কেন্দ্রের বিজেপি সরকারকে আক্রমণ করেন।
কংগ্রেসের সর্বভারতীয় নেতা রাজেশ লাইলোকিয়া বলেন, ত্রিপুরাতে ১৮-র বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপি’র ভিসন ডকুমেন্টে ৩২২টি প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিলো। তার মধ্যে মাত্র দুইটি প্রতিশ্রুতি ছিলো রাজ্যের দলিত সম্প্রদায়ের জন্য।তাও পূরণ হয়নি। রাজ্য বিজেপি’র এই ভিসন ডকুমেন্ট’ই প্রমান করে তারা দলিত বিরোধী।
রাজেশ লাইলোকিয়া বলেন, ২০২০ সাল থেকে এখন পর্যন্ত গোটা দেশে দলিত নির্যাতনের মামলা লিপিবদ্ধ হয়েছে ২৫,২০২টি। অবাক করার মতো বিষয় এসময়ে ত্রিপুরাতে দলিত আক্রমনের মামলা হয়েছে মাত্র ২টি। রাজেশের অভিযোগ, ত্রিপুরাতে দলিত আক্রমণের সংখ্যা অনেক।বাস্তব অর্থে বিজেপি পুলিশ মামলাই লিপিবদ্ধ করেনি।
সর্ব ভারতীয় এই কংগ্রেস নেতার বক্তব্য, রাজ্যের মানুষের কাছে বিজেপি সরকার “জুমলা সরকার” হিসাবে পরিচিত। মানুষ তাদের আর মেনে নিতে পারছে না। আসন্ন উপ নির্বাচনেই জবাব দেবে মানুষ। সারা দেশে বিজেপি কখনো রামের নামে,কখনো হনুমানের নামে, আবার কখনো শিবের নামে দলিতদের উপর স্টিমরুল চালিয়ে যাচ্ছে।
এদিনের সাংবাদিক বৈঠকের উপস্থিত পিসিসি’র প্রাক্তন সভাপতি গোপাল রায় রাজ্যের বিজেপি সরকারকে কাঠ গড়ায় তুলেন।তিনি বলেন, রাজ্যের এসটি, এসসি, ওবিসি সম্প্রদায়ের ছাত্র-ছাত্রীরা সময় মতো তাদের স্টাইপেন্ড পাচ্ছে না। তাদের জন্য নেই কোনো সুযোগ সুবিধা।
রাজ্যে খুন হওয়া দুই সাংবাদিকের সিবিআই তদন্ত নিয়ে মুখ খোলেন।তিনি বলেন, সিবিআই এখনো এই মামলা গুলির কিনারা করতে পারেনি। রাজ্য ও কেন্দ্রের বিজেপি সরকার এই বিষয় নিয়ে নিশ্চুপ কেন? প্রশ্ন গোপাল রায়ের। কংগ্রেস ভবনে অনুষ্ঠিত এই সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন প্রদেশ কংগ্রেসের মুখপাত্র প্রশান্ত ভট্টাচার্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published.