তেলিয়ামুড়া ডেস্ক,১৭সেপ্টেম্বর।।

বাবাকে খুনের পর লাশ গুম করে রাজ্যন্তরী হওয়া ছেলেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ধৃত খুনি ছেলের নাম সুখ সাধন জমাতিয়া। তাকে ব্যাঙ্গালুরু থাকে গ্রেফতার করেছে তেলিয়ামুড়া থানার পুলিশ।বৃহস্পতিবার রাতে পুলিশ তাকে তেলিয়ামুড়া থানায় নিয়ে আসে।শুক্রবার তাকে তোলা হয়েছে খোয়াই আদালতে।ঘটনা তেলিয়ামুড়ার তুইথাম্পুই এলাকায়। তেলিয়ামুড়া থানার এসআই শুভঙ্কর দেববর্মা নেতৃত্বে অভিযুক্ত সুখ সাধনকে মোবাইল ট্র্যাকিংয়ের মাধ্যমে পুলিশ গ্রেফতার করেছে।
তদন্তকারী পুলিশ জানায়,গত ১৭আগস্ট থেকে তেলিয়ামুড়া থানাধীন তুইথাম্পুই এলাকার বাসিন্দা জহরলাল জমাতিয়া ও তার ছেলে সুখ সাধন জমাতিয়া নিখোঁজ ছিলো। গত ৩১আগস্ট নিখোঁজ জহরলাল জমাতিয়ার স্ত্রী তেলিয়াথানায় বিষয়টি জানিয়ে মিসিং ডায়েরি করেন। তদন্ত শুরু করে পুলিশ। মিসিং ডায়েরি করার সাতদিনের মধ্যেই বাড়ির পার্শ্ববর্তী জঙ্গল থেকে উদ্ধার হয় জহর লাল জামাতিয়ার পচা-গলা মৃতদেহ। এই ঘটনার পর মৃত জহরলাল জমাতিয়ার স্ত্রী তার ছেলের প্রতি সন্দেহ প্রকাশ করেন। ছেলে সুখ সাধন বাবাকে খুন করে পালিয়ে গিয়েছে বলে মৃত জহরলালের স্ত্রী দাবি করেন।
এই অভিযোগের ভিত্তিতে তেলিয়ামুড়া থানার পুলিশ তদন্ত শুরু করে।মামলার অনুসন্ধানকারী অফিসার শুভঙ্কর দেববর্মা সুখ সাধন জমাতিয়ার মোবাইলের উপর নজর রাখতে শুরু করেন।পুলিশ মোবাইল নম্বর ট্র্যাক করে সুখ সাধনের ব্যাঙ্গালুরু’র অবস্থান সম্পর্কে নিশ্চিত হয়।এরপরই এই মামলার তদন্তকারী অফিসার শুভঙ্কর দেববর্মার নেতৃত্বে তেলিয়ামুড়া থানার পুলিশের একটি টিম ছুটে যায় ব্যাঙ্গালুরুতে। স্থানীয় পুলিশের সহায়তা নিয়ে তেলিয়ামুড়া থানার পুলিশ গ্রেফতার করে সুখ সাধনকে।এবং তাকে নিয়ে আসে তেলিয়ামুড়া থানায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.