ডেস্ক রিপোর্টার,২৮ফেব্রুয়ারি।।
রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেবের পিতা প্রয়াত হিরুধন দেব ছিলেন রাজ্য বিজেপি’র একজন সক্রিয় কার্যকর্তা। গোমতী জেলা সহ রাজ্যে বিজেপি’র প্রসার ঘটাতে ভূমিকা নিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রীর পিতা প্রয়াত হিরুধন দেব। বহু বার তৎকালীন শাসক দল সিপিআইএমের ক্যাডারদের দ্বারা হয়রানির শিকার হয়েছিলেন তিনি। রুখে দাঁড়িয়েছিলেন তৎকালীন শাসকের নিপীড়নের বিরুদ্ধে।
মুখ্যমন্ত্রীর প্রয়াত পিতা হিরুধন দেবের এই রাজনৈতিক কর্মকান্ডের ভূয়সী প্রশাসন করেন দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।শুক্রবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী টুইট করে বলেন,” প্রায়ত হিরুধন দেব ছিলেন সত্যিকারের একজন বিজেপি’র সক্রিয় কার্যকর্তা।তিনি রুখে দাঁড়িয়ে ছিলেন শাসকের নিপীড়নের বিরুদ্ধে।বিভিন্ন সময় দিয়েছিলেন আন্দোলনের নেতৃত্ব।১৯৯৩ সালেও শাসকের হয়রানির শিকার হয়েছিলেন প্রয়াত হিরুধন দেব।”
প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর এই টুইটের পর পাল্টা টুইট করেন মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব।তিনি প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন,” আমার বাবা ত্রিপুরার বিজেপি কর্মকারদের অধিকারের জন্য লড়াই করেছিলেন। ১৯৯৩ সাল থেকে যারা নানান ভাবে হয়রানির শিকার হচ্ছিলো দাঁড়িয়েছেন তাদের পাশে। তৎকালীন সময়ের শাসকের নিপীড়নের বিরুদ্ধে করেছিলেন প্রতিবাদ।গড়ে তুলেছিলেন আন্দোলন। রাজ্যের জনগণের সেবায় আমার জীবন উৎসর্গ করার জন্য বাবাই আমার অনুপ্রেরণা।”
প্রসঙ্গত মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেবের পিতা প্রয়াত হিরুধন দেব ১৯৬৭ থেকে প্রদেশ বিজেপি’র কার্যকরী কমিটির সদস্য ছিলেন। যুক্ত ছিলেন বিভিন্ন আন্দোলনের সঙ্গে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.