ডেস্ক রিপোর্টার, ৩০আগস্ট।।
      ” রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব বলেছিলেন সিপিএমকে বঙ্গোপসাগরে ছুঁড়ে ফেলবেন । আমরা বলছি, বঙ্গোপসাগরের ঢেউ তার পায়ের কাছে এসে আছড়ে  পড়েছে।”…… বক্তা  দ্বীপ্সিতা ধর। তিনি সিপিআইএমের ছাত্র সংগঠন এসএফআই’ সর্বভারতীয় যুগ্ম সম্পাদিকা। সোমবার রাজ্য সফরে এসে ঠিক এই ভাষায় বিপ্লব কুমার দেবকে আক্রমণ করেন বাম ছাত্র নেত্রী দ্বীপ্সিতা।
           ২৩-র নির্বাচনকে সামনে রেখে ইতিমধ্যে মাঠে নেমেছে রাজ্যের প্রধান বিরোধী দল সিপিআইএম।প্রতিদিন রাজ্যের বিভিন্ন অংশে দলীয় কার্যকলাপ শুরু করেছে বামেরা। সোমবার বিলোনিয়াতে চারটি বামপন্থী ছাত্র যুব সংগঠনের ডাকে অনুষ্ঠিত হয় জনসভা।এই সভায় উপস্থিত ছিলেন এসএফআই ‘র সর্ব ভারতীয় ছাত্র নেত্রী  দ্বীপ্সিতা ধর ।
                অনুষ্ঠিত সভায়  দ্বীপ্সিতা তীব্র ভাষায় আক্রমণ করেন রাজ্যের শাসক দল বিজেপিকে।
   দ্বীপ্সিতা বলেন, “ত্রিপুরাতে বিজেপির বিসর্জনের সময় এসেছে। বিজেপির বালির প্রাসাদ ধুয়ে মুছে আরব সাগরে চলে যাবে। কেউ বিজেপির বিসর্জন আটকাতে পারবে না।” দ্বীপ্সিতার কথায়, ত্রিপুরা রাজ্যে গনতন্ত্র নেই। বিজেপি সরকার সম্পূর্ণ ভাবে অগণতান্ত্রিক। এক সময় লড়াইয়ের মধ্য দিয়ে এই রাজ্যে মানুষ গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করেছিল।এখন তা ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করছে বিজেপি সরকার।
               দেশের নয়া শিক্ষানীতি নিয়ে সরব ছাত্র নেত্রী দ্বীপ্সিতা। তিনি বলেন, নয়া শিক্ষানীতি চালু হলে বিনা টাকায় ছেলে মেয়েরা স্কুলে পড়াশোনা করতে পারবে না। তাতে সাধারণ গরীব ঘরের ছেলে মেয়েদের পক্ষে শিক্ষা গ্রহণ করা অসম্ভব হয়ে উঠবে। সরকারী স্কুল পরিণত হবে বেসরকারী স্কুলে। কেন্দ্রের নরেন্দ্র মোদীর সরকারকেও কটাক্ষ করেন দ্বীপ্সিতা ধর। তার বক্তব্য,গোটা দেশে জাতের নামে রাজনীতি করছে বিজেপি।দেশের মানুষ এটা হারে হারে টের পাচ্ছে। দেশকে বাঁচাতে হলে ২৪- র লোকসভা নির্বাচনে নরেন্দ্র মোদীর পতন দরকার। তার ত্রিপুরা থেকে বিজেপি সরকারের বিসর্জন নিশ্চিত করতে হবে বলে মনে করেন এই বাম ছাত্র নেত্রী।

Leave a Reply

Your email address will not be published.